Advertisement
  • এই মুহূর্তে দে । শ
  • আগস্ট ১১, ২০২৩

সাত সকালেই অগ্নিকাণ্ডের সাক্ষী মহানগর। বৌবাজারের গুদামে আগুন, আতঙ্কিত স্থানীয়রা

আরম্ভ ওয়েব ডেস্ক
সাত সকালেই অগ্নিকাণ্ডের সাক্ষী মহানগর। বৌবাজারের গুদামে আগুন, আতঙ্কিত স্থানীয়রা

আবারো অগ্নিকাণ্ডের সাক্ষী হল মহানগর। এবার ঘটনাস্থল বৌবাজার। দিনের শুরুতেই আচমকা আগুন লেগে যায় একটি বহুতলের বেসমেন্টে। সেখান থেকে আশেপাশের কয়েকটি দোকানেও তা ছড়িয়ে দ্রুত তা ছড়িয়ে পড়ছে। দমকল কর্মীরা সমস্ত রকম ভাবে চেষ্টা করছেন আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার। কয়েকমাস আগেই বড়োবাজারেও ঘটেছিল এমন এক দুর্ঘটনা। বার বার একই ঘটনার পুনরাবৃত্তিতে প্রশাসনের উদাসীনতাকেই দায়ী করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শুক্রবার সকাল ৭টা ৩৫ মিনিট নাগাদ বিবি গাঙ্গুলি স্ট্রিট সংলগ্ন আট তলার একটি বিল্ডিং-এর বেসমেণ্টে আচমকাই আগুন লেগে যায়। এর ওপরে রয়েছে একটি বেসরকারি ব্যাঙ্কের কার্যালয়। আর তাঁর ওপরের তলগুলোতে থাকেন আবাসনের আবাসিকরা। অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা সামনে আসতেই তাঁরা অত্যন্ত আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। অনেকেই চেষ্টা করেন বাইরে বেরিয়ে আসতে। কিন্তু আগুন ক্রমশ ছড়িয়ে পড়তে থাকায় তা সম্ভব হয়নি। পরে দমকলের তিনটি ইঞ্জিন এসে আগুন নেভানোর চেষ্টা করে ও বিপন্নদের একে একে বার করে আনতে থাকেন। অত্যন্ত সংকীর্ণ গলিতে অবস্থিত হওয়ায় উদ্ধারকার্য চালাতে যথেষ্টই অসুবিধার সম্মুখীন হচ্ছেন তাঁরা। বিশেষ জ্যাকেট এবং মাস্ক পরে অক্সিজেন সিলিন্ডার নিয়ে ভিতরে ঢুকে আগুন নেভানোর চেষ্টা করে যাচ্ছেন। আশার কথা, এখনো কোনো প্রাণহানির খবর নেই।

আগুন কীভাবে লাগল তা নিয়ে এখনও ধোঁয়াশা রয়েছে। স্থানীয় বাসিন্দারা বলছেন, যে জায়গায় আগুন লেগেছে, সেটি একটি গুদামঘর। যেখানে বাক্সের পর বাক্স ভর্তি  রয়েছে আঠা তৈরির রাসায়নিক।  সেকারণেই এ অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে বলে মনে করছেন তাঁরা। ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় অবস্থিত হওয়া সত্ত্বেও কেন সেখানে আগুন নেভানোর যথাযথ ব্যবস্থা করা হয়নি তা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই অভিযোগ জানানো হচ্ছে। তবে, এলাকাবাসীদের মতে, তাতে বিশেষ কিছু লাভ হয়নি ।


  • Tags:
❤ Support Us
error: Content is protected !!