Advertisement
  • ন | গ | র | কা | হ | ন প্রচ্ছদ রচনা
  • ডিসেম্বর ২৮, ২০২৩

পয়লা জানুয়ারি থেকে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে রেশন ডিলার

আরম্ভ ওয়েব ডেস্ক
পয়লা জানুয়ারি থেকে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে রেশন ডিলার

আগামী পয়লা জানুয়ারি থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য ধর্মঘটে যাচ্ছে রেশন ডিলাদের সংগঠন অল ইন্ডিয়া ফেয়ার প্রাইস ডিলার্স ফেডারেশন। মোট ৫ লক্ষ ৩৮ হাজার রেশন ডিলার এই ধর্মঘটে সামিল হবে। এর ফলে ৮১ কোটি রেশন গ্রাহক সমস্যায় পড়বে। মুলত কমিশন বৃদ্ধির দাবিতেই এই ধমঘটের ডাক দেওয়া হয়েছে দেশজুড়ে। কমিশন বৃদ্ধির দাবি নিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারের কাছ থেকে কোনও ইতিবাচক সাড়া  আসেনি। তাই নতুন বছরের প্রথম দিন থেকেই দেশব্যাপী এই লাগাতার রেশন দোকান ধর্মঘটের সিদ্ধান্তের ডাক দিয়েছে ডিলারদের সর্বভারতীয় সংগঠন।

অল ইন্ডিয়া ফেয়ার প্রাইস শপ ডিলার্স ফেডারেশন বুধবার এক সাংবাদিক বৈঠক করে জানিয়েছে, ধর্মঘটের সিদ্ধান্তের বিষয়টি গত ১৫ নভেম্বর কেন্দ্রীয় সরকার ও রাজ্য সরকারগুলিকে লিখিতভাবে তারা জানিয়ে দিয়েছে । কিন্তু এখনও পর্যন্ত দাবিগুলি নিয়ে আলোচনায় বসার কোনও প্রস্তাব দেয়নি কেন্দ্রীয় সরকার। সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক বিশ্বম্ভর বসু জানিয়েছেন, কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রক কয়েকদিন আগে তাঁদের দাবিগুলির বিষয়টি খাদ্যমন্ত্রককে অবহিত করেছে। বিষয়টি অর্থমন্ত্রকের পক্ষ থেকে তাঁদের জানানো হয়েছে। শুধুমাত্র এইটুকু সরকারি পদক্ষেপের ভিত্তিতে পয়লা জানুয়ারি থেকে তাদের প্রস্তাবিত ধর্মঘট স্থগিত করা সম্ভব নয়। কারণ যে পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে, তাতে ডিলারদের পক্ষে রেশন দোকান চালানো এখন অসম্ভব হয়ে পড়েছে।
ডিলারদের সংগঠন কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে ১১ দফা ও রাজ্য সরকারের কাছে ৭ দফা দাবি পেশ করেছে। কেন্দ্রের কাছে মূল আর্থিক দাবিটি হল, ডিলারদের মাসে অন্তত ৫০ হাজার টাকা আয়ের ব্যবস্থা যাতে হয় সেই ব্যবস্থা করতে হবে। ফেডারেশনের দাবি, এখন যে হারে কমিশন দেওয়া হয়, তাতে দোকান চালাতে মাসে ১৬ হাজার টাকা লোকসান হচ্ছে। তাই “চুরি” করে রেশন দোকান চালাতে চাইছেন না তাঁরা। হুগলি শিল্পাঞ্চলের আড়াইশোর বেশি ডিলার বুধবার তাঁদের লাইসেন্স খাদ্য দপ্তরকে ফেরত দিয়েছেন। আগামী দিনে আরও ডিলার এই পথে যেতে বাধ্য হবেন বলে সংগঠনের দাবি। কেন্দ্রীয় সরকার কমিশন বাড়ানোর আর্থিক দায় রাজ্য সরকারের উপর চাপাচ্ছে। আর রাজ্য অতিরিক্ত আর্থিক দায় নিতে চাইছে না। ধর্মঘট শুরুর আগে আগামী শুক্রবার মির্জা গালিব স্ট্রিটে  রাজ্য খাদ্যদপ্তরের বাইরে ফেডারেশন অবস্থান ও বিক্ষোভ প্রদর্শন করবে। সেখানে কেন্দ্রীয় খাদ্যমন্ত্রী পীযুষ গোয়েলের কুশপুতুলও পোড়ানো হবে। ১৬ জানুয়ারি দিল্লিতে মিছিল ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে স্মারকলিপি দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন বিশ্বম্ভর বসু।


  • Tags:

Read by:

❤ Support Us
Advertisement
Hedayetullah Golam Rasul Raktim Islam Block Advt
Advertisement
Hedayetullah Golam Rasul Raktim Islam Block Advt
Advertisement
শিবভোলার দেশ শিবখোলা স | ফ | র | না | মা

শিবভোলার দেশ শিবখোলা

শিবখোলা পৌঁছলে শিলিগুড়ির অত কাছের কোন জায়গা বলে মনে হয় না।যেন অন্তবিহীন দূরত্ব পেরিয়ে একান্ত রেহাই পাবার পরিসর মিলে গেছে।

সৌরেনি আর তার সৌন্দর্যের সই টিংলিং চূড়া স | ফ | র | না | মা

সৌরেনি আর তার সৌন্দর্যের সই টিংলিং চূড়া

সৌরেনির উঁচু শিখর থেকে এক দিকে কার্শিয়াং আর উত্তরবঙ্গের সমতল দেখা যায়। অন্য প্রান্তে মাথা তুলে থাকে নেপালের শৈলমালা, বিশেষ করে অন্তুদারার পরিচিত চূড়া দেখা যায়।

মিরিক,পাইনের লিরিকাল সুমেন্দু সফরনামা
error: Content is protected !!