Advertisement
  • এই মুহূর্তে ন | গ | র | কা | হ | ন
  • জানুয়ারি ৩, ২০২৪

“অভিষেকের জন্য কাজ ছেড়ে আড়াই ঘণ্টা বসেছিলাম, বিষয়টি নিয়ে রাজনীতি করা হচ্ছে “, কালীঘাটে অভিযোগ সাধ্বী নিরঞ্জন জ্যোতির

আরম্ভ ওয়েব ডেস্ক
“অভিষেকের জন্য কাজ ছেড়ে আড়াই ঘণ্টা বসেছিলাম, বিষয়টি নিয়ে রাজনীতি করা হচ্ছে “, কালীঘাটে অভিযোগ সাধ্বী নিরঞ্জন জ্যোতির

১০০ দিনের টাকা আদায়ের নাম করে তৃণমূল রাজনীতি করছে বলে বুধবার কলকাতায় এসে অভিযোগ করলেন কেন্দ্রীয় পঞ্চায়েত ও গ্রামোন্নয়ন মন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী সাধ্বী নিরঞ্জন জ্যোতি। গত বছরের অক্টোবর মাসে ১০০ দিনের কাজের বকেয়া টাকা আদায়ের দাবিতে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে দিল্লি গিয়ে বিক্ষোভ দেখিয়েছিলেন তৃণমূলের প্রতিনিধি দল। তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্য়ায়ের নেতৃত্বে খোদ পঞ্চায়েত মন্ত্রকের দফতরে প্রতিমন্ত্রী সাদ্ধী নিরঞ্জন জ্যোতির মন্ত্রকে গিয়ে ধরনাও দিয়ছিলেন সেই প্রতিনিধিরা। পরে সেই মন্ত্রক থেকে তৃণমূল প্রতিনিধিদের আটক করে দিল্লি পুলিশ। তৃণমূলের অভিযোগ ছিল, দফতরে গেলেও মন্ত্রী তাঁদের সঙ্গে দেখা করেননি। বুধবার কলকাতায় এসে পঞ্চায়েত ও গ্রামোন্নয়ন মন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী সাধ্বী নিরঞ্জন জ্যোতি দাবি করলেন, সে দিন তিনি আড়াই ঘণ্টা ধরে অপেক্ষা করলেও তাঁর সঙ্গে দেখা করেননি তৃণমূলের প্রতিনিধিরা।

বুধবার সকালে কলকাতার কালীঘাট মন্দিরে পুজো দিতে এসেছিলেন সাধ্বী নিরঞ্জন জ্যোতি। পুজো দিয়ে ফেরার সময় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি জানান, সে দিন তৃণমূল প্রতিনিধিদের সঙ্গে দেখা করবেন বলে তিনি সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত অপেক্ষা করেছিলেন। কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী বলেন, “প্রথমে ওরা বলেছিল, ৫ জন  দেখা করবে। তারপর বলল ১০ জন দেখা করবে। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় যাবেন বলেছিলেন। আমি রাজি হয়েছিলাম দেখা করতে। তারপর ওরা বলল, প্রতিনিধি নয়, জনতার সঙ্গে দেখা করতে হবে।”

কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, “এটা ভাবলে আমার খুব কষ্ট হয় যে আমি নিজের কাজ ছেড়ে কথা বলতে চেয়েছিলাম বাংলার মানুষের ভালর জন্য। আসলে বাংলার মানুষের কথা ভাবা নয়, এদের মূল উদ্দেশ্যই ছিল ধরনা দেওয়া, রাজনীতি করা। আমরা কারও টাকা বন্ধ করে রাখিনি। যদি টাকা বন্ধ করাই আমাদের লক্ষ্য হত, তাহলে অন্যান্য প্রকল্পের সব টাকা বন্ধ করে দেওয়া হত।”

এই ইস্যুতে দিল্লি থেকে ফিরেও বারবার প্রতিবাদ করেছে তৃণমূল নেতৃত্ব। রাজভবনের সামনে ধরনাও দিয়েছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় দলের অন্যান্যদের নিয়ে। সম্প্রতি ১০০ দিনের বকেয়া টাকার দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে দেখা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন এই বিষয়ে কেন্দ্র ও রাজ্যের প্রশাসনিক স্তরে আলোচনা হবে। কোথায় কি সমস্যা আছে সেটাকে চিহ্নিত করতে হবে। এদিন নিরঞ্জন জ্যোতি বলেন, “মুখ্যমন্ত্রী দিল্লি গেলেন প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে রাজ্যের বকেয়া নিয়ে আলোচনা করতে অথচ কোনও নথি নিয়ে গেলেন না। কেন্দ্র কোনও খাতের টাকা আটকাতে চায়নি। বিষয়টি নিয়ে রাজনীতি করা হচ্ছে।”


  • Tags:

Read by:

❤ Support Us
Advertisement
homepage block Mainul Hassan and Laxman Seth
Advertisement
homepage block Mainul Hassan and Laxman Seth
Advertisement
শিবভোলার দেশ শিবখোলা স | ফ | র | না | মা

শিবভোলার দেশ শিবখোলা

শিবখোলা পৌঁছলে শিলিগুড়ির অত কাছের কোন জায়গা বলে মনে হয় না।যেন অন্তবিহীন দূরত্ব পেরিয়ে একান্ত রেহাই পাবার পরিসর মিলে গেছে।

সৌরেনি আর তার সৌন্দর্যের সই টিংলিং চূড়া স | ফ | র | না | মা

সৌরেনি আর তার সৌন্দর্যের সই টিংলিং চূড়া

সৌরেনির উঁচু শিখর থেকে এক দিকে কার্শিয়াং আর উত্তরবঙ্গের সমতল দেখা যায়। অন্য প্রান্তে মাথা তুলে থাকে নেপালের শৈলমালা, বিশেষ করে অন্তুদারার পরিচিত চূড়া দেখা যায়।

মিরিক,পাইনের লিরিকাল সুমেন্দু সফরনামা
error: Content is protected !!