Advertisement
  • এই মুহূর্তে ন | গ | র | কা | হ | ন
  • জানুয়ারি ৮, ২০২৪

বাংলাদেশের সংসদে এবার দেশের দুই প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক

আরম্ভ ওয়েব ডেস্ক
বাংলাদেশের সংসদে এবার দেশের দুই প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক

বাইশ গজে দেশকে নেতৃত্ব দিয়ে বহু ম্যাচে জয় এনে দিয়েছেন। এবার ক্রিকেটের পাশাপাশি অন্য কাজে দেখা যাবে সাকিব আল হাসানকে। বাংলাদেশের দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে জিতে সাংসদ হলেন সাকিব। মাশরাফি বিন মোর্তাজার মতো এবার তাঁকেও দেখা যাবে সংসদে।

আওয়ামি লিগের হয়ে নৌকা চিহ্ন নিয়ে লড়ে দুরন্ত জয় ছিনিয়ে নিয়েছেন সাকিব। মাগুরা-১ আসন থেকে তিনি ১ লক্ষ ৭৯ হাজার ৩৯৪ ভোটে জয়লাভ করেছেন। সদরের একাংশ ও শ্রীপুর উপজেলা নিয়ে গঠিত এই আসনের ১৪২টি ভোটগ্রহণ কেন্দ্রে ভোটারের সংখ্যা ছিল ৪ লক্ষ ৪৮৫। ভোট পড়ে ৪৮ শতাংশের কিছু বেশি। সাকিব পেয়েছেন ১ লক্ষ ৮৫ হাজার ৩৮৮ট ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বাংলাদেশ কংগ্রেসের রাজি রেজাউল হোসেন ডাব প্রতীকে পেয়েছেন ৫ হাজার ৯৯৪ ভোট। অন্য তিন প্রার্থীর মধ্যে জাতীয় পার্টির মহম্মদ সিরাজুস সায়েফিন (লাঙ্গল প্রতীক) ২ হাজার ১৪৩টি ভোট পান। বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্টের এম মোতাসিম বিল্লা (টিভি প্রতীক) ৬৫৪ ও তৃণমূল বিএনপির সঞ্জয় কুমার রায় (সোনালি আঁশ) ৮৬৮টি ভোট পেয়েছেন।

আগের সংসদ নির্বাচনেও লড়াই করতে চেয়েছিলেন সাকিব। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাকিবকে খেলায় মন দিতে বলেছিলেন। এবার অবশ্য সাকিবকে নির্বাচনে লড়াই করার অনুমতি দেন। তাঁর প্রাক্তন সতীর্থ মাশরাফি বিন মোর্তজাও বড় ব্যবধানে জিতে সাংসদ পদ ধরে রেখেছেন।

নড়াইল ২ আসন থেকে এবারও আওয়ামি লিগের প্রার্থী হয়েছিলেন মাশরাফি। এই আসনে মোট ভোটার ছিলেন ৩ লক্ষ ৬৫ হাজার ৭২৯ জন। মোট প্রার্থী ছিলেন ৮ জন। আওয়ামি লিগের মনোনয়ন না পেয়ে নির্দল প্রার্থী হিসেবে ট্রাক চিহ্ন নিয়ে ভোটে লড়েন সৈয়দ ফয়জুল আমির ও মহম্মদ নূর ইসলাম (ঈগল প্রতীক)। ফয়জুল অবশ্য মাশরাফিকে সমর্থন জানিযে ভোটের লড়াই থেকে সরে দাঁড়ান। মাশরাফি ১ লক্ষ ৮৯ হাজার ১০২টি ভোট পেয়েছেন। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ওয়ার্কার্স পার্টির শেখ হাফিজুর রহমান (হাতুড়ি চিহ্ন) পেয়েছেন ৪ হাজার ০৪১টি ভোট।


  • Tags:

Read by:

❤ Support Us
Advertisement
Hedayetullah Golam Rasul Raktim Islam Block Advt
Advertisement
Hedayetullah Golam Rasul Raktim Islam Block Advt
Advertisement
শিবভোলার দেশ শিবখোলা স | ফ | র | না | মা

শিবভোলার দেশ শিবখোলা

শিবখোলা পৌঁছলে শিলিগুড়ির অত কাছের কোন জায়গা বলে মনে হয় না।যেন অন্তবিহীন দূরত্ব পেরিয়ে একান্ত রেহাই পাবার পরিসর মিলে গেছে।

সৌরেনি আর তার সৌন্দর্যের সই টিংলিং চূড়া স | ফ | র | না | মা

সৌরেনি আর তার সৌন্দর্যের সই টিংলিং চূড়া

সৌরেনির উঁচু শিখর থেকে এক দিকে কার্শিয়াং আর উত্তরবঙ্গের সমতল দেখা যায়। অন্য প্রান্তে মাথা তুলে থাকে নেপালের শৈলমালা, বিশেষ করে অন্তুদারার পরিচিত চূড়া দেখা যায়।

মিরিক,পাইনের লিরিকাল সুমেন্দু সফরনামা
error: Content is protected !!